এক লাখ পিস ইয়াবা ও মাইক্রোবাসসহ  ৩ জন  আটক 

র‌্যাব-৭, চট্টগ্রাম গোপন সংবাদের মাধ্যমে জানতে পারে যে, কতিপয় মাদক ব্যবসায়ী টেকনাফ হতে একটি মাইক্রোবাস যোগে বিপুল পরিমাণ ইয়াবা ট্যাবলেট নিয়ে কক্সবাজার দিকে যাচ্ছে।
উক্ত সংবাদের ভিত্তিতে ২০ অক্টোবর র‌্যাব-৭ এর একটি অভিযানে সদর থানাধীন কক্সবাজর-টেকনাফ আঞ্চলিক মহাসড়ক বিসিক এলাকা পাকা রাস্তার উপর চেকপোষ্ট স্থাপন করে মাইক্রোবাসটি আটকপূর্বক  আসামী ১। মোঃ জোবায়ের @ জোহার (৩৫), পিতা-মৃত হাসিবুর রহমান, গ্রাম- জাহালিয়াপাড়া, থানা-টেকনাফ, ২। বেলাল উদ্দিন (২২), পিতা- মৃত বাদশা মিয়া, গ্রাম- ধুরুমখালী জনাব আলী পাড়া, থানা- উখিয়া, উভয় জেলা-কক্সবাজার এবং ৩। সৈয়দুল আমিন (২১), পিতা-বনি আমিন, গ্রাম- চামিলা, থানা- মংডু, জেলা- বুসডিং, মায়ানমার, বর্তমানে গ্রাম- কুতুপালং ঊ-২ রোহিঙ্গা ক্যাম্প, থনা-উখিয়া, জেলা- কক্সবাজারদের’কে আটক করে।

পরবর্তীতে উপস্থিতি সাক্ষীদের সম্মুখে আটককৃত আসামীদেরকে ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদে উক্ত মাইক্রোবাসটি তল্লাশি করে মাইক্রোবাসের ভিতরে সিলিং এর মধ্যে বিশেষ কৌশলে লুকানো অবস্থায় ১,০০,০০০ (এক লক্ষ) পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধারসহ আসামীদেরকে গ্রেফতার করা হয় এবং উক্ত মাইক্রোবাসটি (ঢাকা মেট্রো চ-১১-৯৩০৫) জব্দ করা হয়। উলেলখ্য যে, গ্রেফতারকৃত সৈয়দুল আমিন (২১) একজন ‘‘বলপূর্বক বাস্তুচ্যুত মায়ানমার এর নাগরিক’’। উদ্ধারকৃত ইয়াবা ট্যাবলেটের আনুমানিক মূল্য ০৫ কোটি টাকা এবং জব্দকৃত মাইক্রোবাসের আনুমানিক মূল্য ৩০ লক্ষ টাকা।

গ্রেফতারকৃত আসামী এবং উদ্ধারকৃত মালামাল সংক্রান্তে পরবর্তী আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের নিমিত্তে কক্সবাজার সদর থানায় হস্তান্তার করা হয়েছে র‌্যাবের মিডিয়া অফিসার মাশুকুর রহমান এক প্রেস বার্তায় সংবাদ মাধ্যমকে নিশ্চিত করেন।

 

Please follow and like us:
comments

You May Also Like

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *